নেপালের পাহাড়ি পথে বাস খাদে পড়ে মৃত ৩২, আহত ১৩

নেপালের সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, মঙ্গলবার মুগু জেলায় যাত্রী বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রায় ১ হাজার ফুট (৩০০ মিটার) নীচে পড়ে যায়। দুর্ঘটনার সময় বাসটিতে ৪৫ জন যাত্রী ছিলেন বলে নেপাল পুলিশ সূত্রে দাবি করা হয়েছে।

নেপালের পাহাড়ি পথে বাস খাদে পড়ে মৃত ৩২, আহত ১৩

কাঠমান্ড‌ু: নেপালে যাত্রিবাহী বাস পাহাড়ি খাদে পড়ে কমপক্ষে ৩২ জন মারা গিয়েছেন। নেপালের কাঠমান্ড‌ু পোস্ট সূত্রে বুধবার সকাল পর্যন্ত ৩২ জনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করা হয়েছে। দুর্ঘটনায় আরও ১৩ জন যাত্রী আহত হয়েছেন। এর মধ্যে কয়েক জনের অবস্থা অত্যন্ত গুরুতর। ফলে, মৃতের সংখ্যা আরও বাড়ার আশঙ্কা থাকছে। জানা গিয়েছে, মঙ্গলবার নেপালের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলীয় মুগু জেলায় যাত্রিবাহী বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে পাহাড়ি খাদে পড়ে যায়।

যাত্রিবাহী বাসটির চালক কী কারণে নিয়ন্ত্রণ হারালেন, সে সম্পর্কে নিশ্চিত করে কিছু জানা যায়নি। তবে ধারণা করা হচ্ছে বাসটির ব্রেকে সমস্যা হয়েছিল। হতাহতদের অধিকাংশই সনাতনী ধর্মীয় উৎসব 'বিজয় দশমী' পালন করে বাড়ি ফিরছিলেন।

প্রধান জেলা কর্তা রম বাহাদুর মাহা দাবি করেন, জাতীয় সড়কের সঙ্গে মুগু যোগ হওয়ার পর, বিগত ৯ বছরের মধ্যে এটাই সবচেয়ে বড় সড়ক দুর্ঘটনা। প্রত্যন্ত অঞ্চল কার্নালির সঙ্গে সংযোগকারী মুগু সড়ক সংকীর্ণ এবং রুক্ষ হওয়ায় ঝুঁকিপূর্ণ বলে তিনি জানিয়েছেন।

ALSO READ। জয়তী-শ্রীজাত-প্রত্যুষদের নিয়ে 'গানে-আড্ডায় পুজো'

নেপালের সংবাদমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, মঙ্গলবার মুগু জেলায় যাত্রী বাসটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে প্রায় ১ হাজার ফুট (৩০০ মিটার) নীচে পড়ে যায়। দুর্ঘটনার সময় বাসটিতে ৪৫ জন যাত্রী ছিলেন বলে নেপাল পুলিশ সূত্রে দাবি করা হয়েছে। দুর্ঘটনাস্থলেই ২৪ জন মারা যান। পরে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে আরও ৪ জনের মৃত্যু হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান আরও ৪ জন। মৃতদের বেশির ভাগই অভিবাসী শ্রমিক এবং ছাত্র ছিলেন।

ALSO READ। জয়-সৌম্য জুটির কথায়-সুরে পুজোর গানে হাজির জয়িতা দে